রোগীকে জোর করে সিজার অপারেশান করে মৃত্য বাচ্চা আইসিইউতে রেখে ৫ লক্ষটাকা বিল।

রোগীকে জোর করে সিজার অপারেশান করে

 মৃত্য বাচ্চা আইসিইউতে রেখে ৫ লক্ষটাকা বিল।

অভিযোগ উঠেছে এক নবজাতকের মৃত্যু হয়েছে বলে স্কয়ার হাসপাতালে অবহেলা ও চিকিৎসকদের ভুল চিকিৎসায়। শুক্রবার ডেলিভারির সঙ্গে সঙ্গে নবজাতককে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) রাখা হয় গত বৃহস্পতিবার হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পর।

ওই নবজাতককে মৃত ঘোষণা করেন সোমবার (৯ এপ্রিল) সকালে চিকিৎসকরা। অভিযোগ করেন ভুক্তভোগীর পরিবার আইসিইউতে রেখে ৫ লক্ষাধিক টাকা বিল হয়েছে বলেও। এসময়  হাতাহাতির ঘটানাও ঘটে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলতে গেলে।
অনুসন্ধানকে শাহবুদ্দিন টিপু(বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত নবজতাকের বাবা) বলেন, ‘গত বৃহস্পতিবার (০৫ এপ্রিল) চেক-আপের জন্য স্কয়ারে নিয়ে যাই আমার স্ত্রী তাসলিমা তারানুম নোভাকে। প্রসব বেদনা উঠলে তাকে হাসপাতালে আনতে বলেন গাইনি বিশেষজ্ঞ ডাঃ রেনুমা জাহান কয়েকটি চেক-আপ করিয়ে। এসময় অন্য এক ডাক্তার এসে বলে, ভর্তি করাতে হবে আমার স্ত্রীকে। আমি বলি আমি ভর্তি করাবো না, আমার স্ত্রীর তো কোনো প্রসব ব্যথা নেই। কিন্তু এক প্রকার জোর করেই প্রসব বেদনার জন্য ইনজেকশন দেয় ডাক্তার, আমার স্ত্রীকে ভর্তি করে। এরপর শুক্রবার অপারেশন থিয়েটারে নিয়ে যায় আমার স্ত্রীকে ডেলিভারি করানোর জন্য। আমাকে জানানো হয় আমার বাচ্চা মারা গেছে অপারেশন থিয়েটার থেকে। এরপরেও আইসিইউতে রেখে দেয় ডাক্তাররা আমার বাচ্চাকে।’

গর্ভকালীন সময়ে হোমিও ঔষধ সেবন নিরাপদ ও ইজি ডেলিবারী হবে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *