রক্তশূণ্যতা দূর করতে কী খাবেন?

অ্যানিমিয়া অর্থাৎ রক্তাল্পতার সমস্যায় সাধারণত মেয়েরাই বেশি ভুগে থাকেন।  রক্তস্বল্পতায় ভুগলে ওষুধের উপর নির্ভরশীল না হয়ে খাদ্য তালিকায় এমন কিছু খাবার যোগ করুন যা শরীরে রক্তের পরিমাণ বাড়ায়। এক্ষেত্রে ড্রাই ফ্রুটস, বিভিন্ন বীজ হতে পারে উপযোগী খাবার।  শরীরে হিমোগ্লোবিন বাড়াতে সহায়তা করে এমন কিছু খাবারের কথা চলুন জেনে নেওয়া যাক।

ফল ও সবজি:

অ্যানিমিয়া রোগীদের প্রচুর পরিমাণে ফল ও সবজি খাওয়া উচিত। পালং শাক আয়রনের উল্লেখযোগ্য উৎস।এ ছাড়াও লাউ, ভেন্ডি, ফুলকপি, ব্রকোলিও খাওয়া যেতে পারে। ১০০ গ্রাম ফুলকপিতে ৩ মিলিগ্রাম আয়রন থাকে। আবার ১০০ গ্রাম ব্রকোলি খেলে ২.১৪ মিলিগ্রাম আয়রন পাওয়া যায়।

ডিম:

ডিমে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন থাকে। শরীর সুস্থ রাখার পাশাপাশি রক্তাল্পতা দূর করতেও যাদুকরী ভূমিকা পালন করে ডিম।

ডাল ও বিনস:

ছোলা, কালো সিম, বিনস, রাজমা ও সোয়াবিন খাদ্য তালিকায় অন্তর্ভূক্ত করলে অ্যানিমিয়া আক্রান্তরা উপকার পেতে পারেন। এছাড়া অঙ্কুরিত ডালে প্রচুর পরিমাণে আয়রন থাকে। রক্তাল্পতা দূর করতে নিয়মিত অঙ্কুরিত ডাল খাওয়া উচিত।

ওটস:

সকালের নাস্তা হিসেবে ওটসের জুড়ি মেলা ভার। এতে একদিকে যেমন ফ্যাটের পরিমাণ কম থাকে, অন্যদিকে তেমনই প্রচুর পরিমাণে আয়রন পাওয়া যায়। ১০০ গ্রাম ওটসে ৬ মিলিগ্রাম আয়রন থাকে। ওটস অনেকক্ষণ পর্যন্ত পেট ভরে রাখে। অন্য দিকে এটি সহজপাচ্য হয়।

লিভার:

১০০ গ্রাম লিভারে ৪৪.৫৫ মিলিগ্রাম আয়রন থাকে। তাই শরীরে রক্তের অভাব থাকলে অবশ্যই লিভার রাখবেন নিজের খাদ্য তালিকায়।

সামুদ্রিক মাছ:

সামুদ্রিক মাছে যা হাতের কাছে পান তাই খেতে পারেন। কারণ এই মাছে প্রচুর পরিমাণে আয়রন থাকে যা অ্যানিমিয়া রোগীদের জন্য অনেক উপকারী।